শ্রীমঙ্গলে প্রেমিক-প্রেমিকা ধরা

প্রেমিক-প্রেমিকা ধরা (ফাইল ফটো)
  •  
  •  
  •  
  •  

মৌলভীবাজার প্রতিনিধি: মৌলভীবাজারের কুলাউড়ার প্রেমিকা ও জুড়ীর প্রেমিকসহ শ্রীমঙ্গল এলাকা থেকে আটক করেছে পুলিশ। আটকের পর থেকে উভয়ের পরিবার ও এলাকায় চলছে নানা আলোচনা ও গুঞ্জন।

সোমবার (২৭ জুলাই)  ভোরে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে কুলাউড়া থানা ওসি তদন্ত সঞ্জয় চক্রবর্তীর নেতৃত্বে এক বিশেষ অভিযান চালিয়ে শ্রীমঙ্গল উপজেলার সাতগাঁও এলাকার একটি বাড়ি থেকে প্রেমিক যুগলকে আটক করে।

তথ্য সূত্রে জানা যায়, জুড়ী উপজেলার জায়ফরনগর ইউনিয়নের ভবানীপুর গ্রামের জীবন রহমান জিবু (২২) এর সাথে কুলাউড়া উপজেলার ব্রাহ্মনবাজার ইউনিয়নের নাছিরাবাদ এলাকার পাখি মিয়ার মেয়ের সাথে দীর্ঘদিন থেকে প্রেমের সম্পর্ক ছিলো।

প্রেমের সম্পর্ক তাদের মধ্যে গভীর হয়ে উঠলে মেয়ের পক্ষ বিষয়টি জানতে পারলে ছেলেকে মেয়েটির জীবন থেকে সরে যেতে বলে। কিন্তু প্রেমিক জুটি তাদের সম্পর্কে অনড় থাকলে একপর্যায় মেয়ের অভিভাবকরা মেয়েকে মানুষিক ভাবে নির্যাতন শুরু করে ওই ছেলের সাথে সম্পর্ক ভেঙ্গে ফেলার হুমকি প্রদান করে।

কিন্তু প্রেমিকা মেয়েটি তার প্রথম ভালোবাসার মানুষটিকে হারাতে না চাওয়ায় প্রায় ২০-২৫ দিন আগে কৌশলে ছেলেকে খবর দিয়ে এনে বাড়ি থেকে অজানার উদ্দেশ্যে পাড়ি জমায়। কিন্তু বে’রশিক পুলিশের হাত থেকে শেষ রক্ষা হয়নি তাদের।

পুলিশ জানায়, মেয়ের বাবা পাখি মিয়া তাঁর মেয়েকে অপহরণ করা হয়েছে বলে থানায় একটি অভিযোগ দিয়েছেন। এর প্রেক্ষিতে পুলিশ অভিযান চালিয়ে প্রেমিক-প্রেমিকাকে শ্রীমঙ্গল থেকে আটক করেছে।

কুলাউড়া থানার ওসি তদন্ত সঞ্জয় চক্রবর্তী ঘটনাটি নিশ্চিত করে জানান, মেয়ের বাবার অভিযোগ পেয়ে আমরা গোপন সংবাদের ভিত্তিতে ছেলে-মেয়ের অবস্থান সম্পর্কে নিশ্চিত হয়ে ২৭ জুলাই সোমবার ভোরে শ্রীমঙ্গল উপজেলার সাতগাঁও এলাকা থেকে তাদেরকে আটক করি। মেয়ের ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য ওসিসি ক্রাইসেস সেন্টারে পাঠানো হয়েছে। এবং ছেলেকে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

ঢা/মমি

জুলাই ২৮, ২০২০ ৪:৪২

(Visited 38 times, 1 visits today)