রেল, নৌ ও আকাশপথে ঈদ যাত্রায় বিপত্তি

স্টাফ রিপোর্টার : দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে ঈদ উপলক্ষ্যে ঘরমুখী মানুষের যাত্রায় বাধা তৈরী হয়েছে। রোববার (২ জুন) সকাল থেকে নৌপথ আকাশ পথ ও রেলপথে আলাদা কারণে যাত্রা বিলম্বিত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

এসব ঘটনায় দুর্ভোগে পড়েছেন ঘরমুখী লাখো মানুষ।

আবহাওয়া অধিদফতর যা জানিয়েছে

লঘুচাপের প্রভাবে  বৃষ্টি হচ্ছে। ফলে এটি থেমে যাবে। তবে আগামী দুদিন এর প্রভাবে থেমে থেমে বৃষ্টি হতে পারে। রংপুর, দিনাজপুর, বগুড়া, রাজশাহী, পাবনা, টাঙ্গাইল, ঢাকা, ময়মনসিংহ, ফরিদপুর, মাদারীপুর, যশোর, কুষ্টিয়া, কুমিল্লা এবং সিলেট অঞ্চলগুলোর ওপর দিয়ে পশ্চিম/উত্তর-পশ্চিম দিক থেকে ঘণ্টায় ৬০ থেকে ৮০ কিলোমিটার বেগে বৃষ্টি বা বজ্রবৃষ্টিসহ অস্থায়ীভাবে ঝড়োহাওয়া বয়ে যেতে পারে।

লঘুচাপের প্রভাবে রংপুর, রাজশাহী, ময়মনসিংহ, ঢাকা, চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের অনেক জায়গায়, খুলনা ও বরিশাল বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় অস্থায়ী দমকা বা ঝড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে।

বন্ধ ৪৩ রুটের নৌ চলাচল

সকাল থেকে দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে সদরঘাট থেকে ৪৩ রুটের নৌ চলাচল সাময়িক বন্ধ ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ অভ্যন্তরীণ নৌ-পরিবহন কর্তৃপক্ষ ( বিআইডব্লিউটিএ ) ।

সকাল সাড়ে ১০টা থেকে ঢাকার সঙ্গে ৪৩ টি রুটের যাত্রীবাহী লঞ্চ চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হয়। বিআইডব্লিউটিএ এর নৌ-নিরাপত্তা ও ট্রাফিক ব্যবস্থাপনা বিভাগের পরিচালক আবু জাফর হাওলাদার এ তথ্য জানান।

আবু জাফর হাওলাদার বলেন, আগেই সিদ্ধান্ত ছিল দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়া থাকলে নৌ যান চলাচল বন্ধ রাখা হবে। আজ সকাল থেকে ঝড়-বৃষ্টির শুরু হয়েছে। এছাড়া আবহাওয়া অধিদফতর নদী বন্দরে ২ নম্বর বিপদ সংকেত দেখিয়ে যতে বলায় আপাতত নৌ চলাচল বন্ধ রাখা হয়েছে।

তিনি আরও জানান, আবহাওয়া পরিস্থিতি স্বাভাবিক না হওয়া পর্যন্ত সদরঘাট থেকে দক্ষিণাঞ্চলের ৪৩ নৌ রুটে যান লঞ্চ চলাচল বন্ধ থাকবে । বিরূপ আবহাওয়ার মধ্যে দুর্ঘটনা এড়াতে এমন সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে।

দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে পাটুরিয়া ফেরীঘাটে ৮ টি ফেরী আটকে গেছে বলে সূত্র জানিয়েছে। এদিকে নৌ চলাচল সাময়িক বন্ধের কারণে ভোগান্তিতে পড়েছেন ঈদে ঘুরমখী মানুষেরা।

দিনের শুরুতেই ট্রেনের শিডিউল বিপর্যয়

ঈদযাত্রায় বিড়ম্বনায় পড়েছেন বেশ কয়েকটি ট্রেনের যাত্রীরা। গন্তব্যে যাওয়ার উদ্দেশে ভোরের আলো না ফুটতেই কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশনে পৌঁছে যাওয়া যাত্রীরা এখন কেবল ট্রেনের অপেক্ষা করছেন।

স্টেশন কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, উত্তরাঞ্চলগামী নীলসাগর এক্সপ্রেস, রাজশাহীগামী ধূমকেতু এক্সপ্রেস ও খুলনাগামী সুন্দরবন এক্সপ্রেস ট্রেন নির্ধারিত সময়ে ছাড়তে পারবে না। এর মধ্যে নীলসাগর এক্সপ্রেস ট্রেনটি প্রায় পাঁচ ঘণ্টা দেরি করে কমলাপুর রেলস্টেশন ছাড়বে, ধূমকেতু ও সুন্দরবন এক্সপ্রেস ছাড়বে দুই ঘণ্টা দেরিতে।

ফলে রোববার (২ জুন) সকাল থেকে কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশনের প্লাটফর্ম ছিল লোকে লোকারণ্য। ঈদযাত্রার শুরুতেই এই বিড়ম্বনা রীতিমতো আতঙ্কে ফেলে দিয়েছে তাদের।

সকাল ৬টায় ধূমকেতু এক্সপ্রেসের ঢাকা ছাড়ার কথা ছিল, তবে সেটি ছেড়েছে সোয়া ৮টায়।

সবচেয়ে বেশি দেরি করছে নীলসাগর এক্সপ্রেস ট্রেনটি। এই ট্রেনের কমলাপুর ছেড়ে যাওয়ার নির্ধারিত সময় সকাল ৮ টা। কিন্তু সেটি বেলা ১২টায় ছাড়বে বলে জানিয়েছে কর্তৃপক্ষ।

কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশন ম্যানেজার আমিনুল হক বলেন, গন্তব্যস্থল থেকে ছাড়তে দেরি করায় ট্রেনগুলো কমলাপুরে পৌঁছতেই দেরি করছে, ফলে ফিরতি ট্রেন হয়ে সেটির কমলাপুর ছাড়তে দেরি হচ্ছে। তবে বিকেলের ট্রেনগুলোর শিডিউল ঠিক থাকবে বলে আশা করেন তিনি।

সারাদিনে কমলাপুর রেলওয়ে স্টেশন থেকে ৩৭ টি আন্তঃনগরসহ ৫২ টি ট্রেন ছেড়ে যাওয়ার কথা রয়েছে। এসব ট্রেনে প্রায় ৩০ হাজার অগ্রিম টিকিট বিক্রি হয়েছে। এছাড়া দাঁড়িয়ে যাওয়ার টিকিটও অনেকে কেটেছেন। সব মিলিয়ে রোববার সারাদিনে প্রায় ৫০ হাজার মানুষের ট্রেনে করে ঢাকা ছাড়ার কথা।

আকাশপথে ঈদযাত্রায় বিপত্তি

দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দর থেকে বেশ কয়েকটি ফ্লাইট বাতিল ও  সময় পুনর্নির্ধারণ করা হয়েছে। এ কারণে যাত্রীদের দুর্ভোগে পড়তে হচ্ছে।

জানা গেছে, দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে রবিবার (২ জুন) ভোর রাত চারটা ৩০ মিনিটের সিলেটগামী বিমান বাংলাদেশ  এয়ারলাইন্সের  বিজি ৪০৫, বিজি ৪০৬ বাতিল করা হয়।

সৈয়দপুরগামী ফ্লাইট বিজি ৪৯৩, বিজি ৪৯৪ দুপুর ১ টায় ও বিজি৪৯৫, বিজি ৪৯৬ সন্ধ্যা ছয়টা ১৫ মিনিটে এবং যশোরগামী বিজি৪৬৫ ও বিজি ৪৬৬ বিকাল চারটায় যাত্রার সময় পুনর্নির্ধারণ করা হয়েছে।

বিমানের মহাব্যবস্থাপক (জনসংযোগ) শাকিল মেরাজ বলেন, ‘দুর্যোগপূর্ণ আবহাওয়ার কারণে কয়েকটি ফ্লাইটের সময় পুনর্নির্ধারণ করা হয়েছে।

সিলেটের সঙ্গে সারা দেশের রেল যোগাযোগ বন্ধ

এদিকে হবিগঞ্জের রশিদপুরে ট্রেনের ইঞ্জিন লাইনচ্যুত হয়েছে। এতে সিলেটের সঙ্গে সারাদেশের রেল যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে।

শায়েস্তাগঞ্জ রেলস্টেশনের স্টেশন মাস্টার সাইফুল ইসলাম জানান, আজ রবিবার (২ জুন) সকাল ১০টার দিকে আখাউড়া থেকে সিলেটগামী কুশিয়ারা ট্রেনটি রশিদপুরে যাওয়ার পর ইঞ্জিন ও একটি বগি লাইনচ্যুত হয়ে যায়।

এতে ট্রেন চলাচল বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়ে। দুর্ঘটনার বিষয়ে জানিয়ে উদ্ধারকারী রিলিফ ট্রেনকে খবর দেওয়া হয়েছে। আখাউড়া থেকে উদ্ধাকারী ট্রেন আসলে উদ্ধার কাজ শুরু হবে।

অন্যদিকে লম্বা ছুটি থাকায় এবার সড়কপথের ঈদযাত্রাও রয়েছে স্বস্তিতে। এখন পর্যন্ত মহাসড়কগুলোর কোনো পয়েন্টে তীব্র যানজটের খবর পাওয়া যায়নি।

ঢা/এমএম

(Visited 1 times, 1 visits today)