বিতর নামাজের সময়েই বিস্ফোরণ হয় মসজিদে, জানালেন দগ্ধ মামুন

  •  
  •  
  •  
  •  

ঢাকা১৮ ডেস্ক: নারায়ণগঞ্জের ফতুল্লার পশ্চিম তল্লা এলাকায় বায়তুস সালাত জামে মসজিদে এশারের বিতররের নামাজ আদায়ের সময় বিস্ফোরণ হয় বলে জানিয়েছে ওই ঘটনায় দগ্ধ মামুন প্রধান। এই বিস্ফোরণের ঘটনায় দগ্ধ হয়ে হাসপাতাল থেকে সুস্থ হয়ে বাড়ি ফেরা প্রথম ব্যক্তি মামুন প্রধান (৩০)।

সোমবার (৭ সেপ্টেম্বর) বিকেলে শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউট থেকে চিকিৎসকদের পরামর্শে ছাড়পত্র দেওয়া হয়েছে।

মামুন জানান, তিনি একটি গার্মেন্টের শ্রমিক। বিস্ফোরণের সময়ে তিনি গলির ভিতর ছিলেন। তখন অনেককেই মসজিদের বাহিরে এসে পানিতে ঝাঁপিয়ে ঝাঁপিয়ে পড়তে দেখেন। ভেতরে অনেক কিছুই জ¦লে পুড়ে ছাই হচ্ছিল। ঘটনাটি ঘটে যখন বেশীরভাগ মানুষই এশার ফরজ ও সুন্নতের পর বিতরের নামাজ পড়ছিল।
গ্যাসের গন্ধ পাওয়ার বিষয়ে তিনি বলেন, গ্যাসের গন্ধ আগে থেকেই ছিল। হালকা হালকা বের হতো। তবে মসজিদ কমিটি কারো সঙ্গে যোগাযোগ করেছে কিনা সেটা তার জানা নেই।

পশ্চিম তল্লার ওই মসজিদে গেল শুক্রবার এশার নামাজের সময় বিকট বিস্ফোরণ ঘটে। ফায়ার সার্ভিসের পাঁচটি ইউনিট ঘটনাস্থলে গিয়ে আধাঘণ্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। সে সময় মসজিদে থাকা অর্ধশতাধিক মানুষের সবাই কমবেশি দগ্ধ হন। তাদের মধ্যে মসজিদের ইমাম আব্দুল মালেকসহ ২৭ জন ইতোমধ্যে মারা গেছেন। আশঙ্কাজনক অবস্থায় ঢাকার শেখ হাসিনা জাতীয় বার্ন ও প্লাস্টিক সার্জারি ইনস্টিটিউটে ভর্তি আছেন আরও ১০ জন।

সেপ্টেম্বর ৮, ২০২০ ৭:০৮

(Visited 25 times, 1 visits today)