বাংলাদেশে নভেম্বরে আসতে পারে করোনার ভ্যাকসিন: স্বাস্থ্যমন্ত্রী

  •  
  •  
  •  
  •  

ঢাকা১৮ প্রতিবেদক রাশিয়ার উদ্ভাবিত করোনার ভ্যাকসিন আগামী নভেম্বরের শেষ নাগাদ বাংলাদেশ পেতে পারে বলে জানিয়েছেন স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণমন্ত্রী জাহিদ মালেক। সোমবার সচিবালয়ের নিজ দফতরে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে স্বাস্থ্যমন্ত্রী এমনটি জানান।

তিনি বলেন, ‘বর্তমানে বিশ্বে যে কয়েকটি দেশ করোনার ভ্যাকসিন  উদ্ভাবন করে তৃতীয় ধাপের ট্রায়াল শেষ করেছে, তাদের মধ্যে রাশিয়ার টিকা এগিয়ে রয়েছে। আগামী নভেম্বরের শেষ দিকে এটি বাজারজাত হতে পারে। অগ্রাধিকার ভিত্তিতে আমরা এ টিকা পাওয়ার চেষ্টা করছি।’

করোনার টিকার বিষয়ে স্বাস্থ্যমন্ত্রী বলেন, ‘বর্তমানে বিশ্বে ১০টির মতো সংস্থা করোনার টিকা আবিষ্কার করেছে। এরমধ্যে ৪ থেকে ৫টি কোম্পানি তাদের তৃতীয় ধাপের ট্রায়াল শেষ করেছে। আমরা এদের সবার সঙ্গে যোগাযোগ রাখছি। চিঠি চালাচালিও হচ্ছে। এ প্রতিষ্ঠানগুলোর মধ্যে যারা আমাদের স্থানীয় ওষুধ উৎপাদনকারী প্রতিষ্ঠানগুলোর সঙ্গে সমন্বয় করে এখানে টিকা উৎপাদন করবে, আমরা তাদের সঙ্গে চুক্তিতে যাবো। এতে আমাদের টিকা পেতে সহজ হবে। এটিকেই আমরা অগ্রাধিকার দিচ্ছি।’

অপর এক প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, ‘আসন্ন শীতে এমনিতেই আমাদের সামাজিক অনুষ্ঠান বেশি হয়। যেমন বিবাহ, পিকনিক, ভ্রমণ—এগুলো শীতকালেই বেশি হয়। এতে মানুষের মাঝে যোগাযোগ বেশি হয়। তাছাড়া শীতকালে ঠান্ডাজনিত রোগব্যাধিও হয়। এসব দিক মাথায় রেখে আমরা আমাদের কর্মপরিকল্পনা গ্রহণ করেছি। প্রধানমন্ত্রীও আমাদের এ বিষয়ে নির্দেশনা দিয়েছেন। আশা করছি, আমরা শীতকালেও করোনা নিয়ন্ত্রণে রাখতে পারবো। ’

সেপ্টেম্বর ২৮, ২০২০ ৫:৩০

(Visited 53 times, 1 visits today)