পিৎজা হাটের বড় ফ্র্যাঞ্চাইজি’র দেউলিয়া ঘোষণা

পিৎজা হাটের বৃহত্তম ফ্র্যাঞ্চাইজি'র দেউলিয়া ঘোষণা

ঢাকা১৮ ডেস্ক: আমেরিকার সবচেয় বড় ফ্র্যাঞ্চাইজি রেস্টুরেন্ট পিৎজা হাট গত বুধবার দীর্ঘদীন বন্ধ থাকার পর দেউলিয়ার হাত থেকে রক্ষা পাওয়ার জন্য আদালতে আবেদন করেছিল। উল্লেখ্য, এনপিসসি ইন্ট্যারন্যাশনাল ইনক. আমেরিকার পিৎজা হাট ব্র্যান্ডটির ফ্র্যাঞ্চাইজি।

ক্যানসাস ভিত্তিক এনপিসি ইন্টারন্যাশনাল বিবৃতিতে জানায়, তারা ঋণদাতাদের সাথে একটু চুক্তি করবে যা কোম্পানির পূনর্গঠনে সমর্থন দিবে, এনপিসির দীর্ঘমেয়াদী ঋণের পরিমান হ্রাস পাবে এবং কোম্পানীর মুলধন কাঠামো শক্তিশালী হবে। এরকম একটি গুজব ছড়ানো হয় আমেরিকার গণমাধ্যমে।

ব্লুমবার্গের মতে, পিৎজা হাটের ৯০৩ মিলিয়ন ডলার ঋণ রয়েছে। এরমধ্যে প্রথম ঋণদাতাদের সাথে ৯০ শতাংশ এবং দ্বিতীয় ঋণদাতাদের সাথে ১৭ শতাংশ ঋণের কোম্পানীর একটি পুনর্গঠন চুক্তি নিয়ে আলোচনা হয়। এই পরিকল্পনার লক্ষ্যে হল কোম্পানীর ঋণ কমানো, যাতে প্রথম ঋণদাতারা তাদের ইক্যুইটি নিতে পারে। এতে রেস্তোঁরাগুলোর বিক্রয়ও অন্তর্ভুক্ত আছে বলে জানিয়েছে ব্লুমবার্গ।

এক বিবৃতিতে এনপিসির প্রধান নির্বাহী ও পিৎজা হাট বিভাগের প্রধান নির্বাহী জন ওয়েবার জানান, রেস্তোঁরা অপারেটরদের উদ্ভুত পরিস্থিতে পণ্যসামগ্রী বৃদ্ধি এবং উচু মানের আর্থিক উৎসাহ প্রদান করেছেন।

এনপিসি রয়েছে আমেরিকার ৩০টি রাজ্য ও কলম্বিয়া জেলায় ১২২৫ টি পিজ্জা হাট আউটলেট ,৩৮৫টি উইন্ডি রেস্টুরেন্ট সেখানে ৭৫০০ জন পূর্ণকালীন কর্মচারী , ২৮,৫০০ খণ্ডকালীন কর্মচারী কাজ করে। জন ওয়েবার পিজ্জা হাটের আউটলেট গুলো খোলা রাখার দিকে ও কর্মচারীদের নিয়মিত বেতন দেওয়ার ক্ষেত্রে নজর রাখছেন।

এক বিবৃতিতে পিজ্জা হাট আশা করে যে, পুনর্গঠনের ফলে এনপিসির পিজ্জা হাট রেস্তোরাঁগুলির একই গতি তৈরি হবে। পুরো আমেরিকার জুড়ে পিজ্জা হাটের ফ্র্যাঞ্চাইজির ব্যবসায় দেখা গেছে যে,মে মাসে তাদের পিজ্জা ও অনন্য খাবারের ডেলিভারি ছিল বিগত ৮ বছরের মধ্যে সর্বোচ্চ।

কিন্তু তবে ব্র্যান্ড হিসাবে পিৎজা হাট বছরের পর বছর ধরে তার প্রতিযোগীদের চ্যালেঞ্জের মুখোমুখি অবস্থানে আছে।

ব্র্যান্ডের মূল সংস্থা ইউম ব্র্যান্ডসের ত্রৈমাসিক ফলাফল যখন এপ্রিলের শেষের দিকে প্রকাশিত হয়, সিস্টার ব্র্যান্ড হিসাবে পরিচিত কেএফসির বিক্রয় কমেছে ২ শতাংশ এবং পিজ্জা হাটের বিক্রয় কমেছে ৯ শতাংশ। যেখানে একই সময়ে বিশ্বব্যাপী পিজ্জা হাট ও কেএফসির প্রতিদ্বন্দ্বী ‘টেকো বেল’ এর বিক্রয় বৃদ্ধি হয়েছে ৪ শতাংশ।

দেশটি কোভিড -১৯ এর বিস্তার রোধে বাধ্যতামূলক রেস্তোঁরাগুলি বন্ধের কারণে পিজ্জা হাটের ফ্র্যাঞ্চাইজি এনপিসির ব্যবসায় মারাত্মক আঘাত হানে এবং এতে তারা তাদের দেউলিয়া ঘোষণা করে।

ঢা/সাখা/মমি

(Visited 3 times, 1 visits today)