ধর্ষণের পর হত্যার স্বীকার করেছেন দিহান

ধর্ষণের পর হত্যার স্বীকার করেছেন দিহান
  •  
  •  
  •  
  •  

ঢাকা১৮ প্রতিবেদক: রাজধানীর কলাবাগানে স্কুলছাত্রীকে (১৭) গ্রুপ স্টাডির কথা বলে ডেকে নিয়ে ধর্ষণের পর হত্যা মামলার প্রধান আসামি ইফতেখার ফারদিন দিহান (১৮) আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন।

শুক্রবার (০৮ জানুয়ারি) এ ঘটনার প্রধান আসামি দিহানকে ঢাকার মুখ্য মহানগর হাকিম আদালতে তুললে দোষ স্বীকার করে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দেন তিনি।

মর্গের ভেতরে সন্তানের লাশ, বাইরে মায়ের বুকফাটা আর্তনাদ। মায়ের দাবি, নির্যাতনের কারণেই শ্বাসকষ্ট হচ্ছিল মেয়ের। তাই শেষ মুহূর্তে বাঁচার চেষ্টাও করেছিল নির্যাতিতা ওই কিশোরী।

সর্বোচ্চ সাজা দাবি করেছেন নিহতের স্বজনরা। এদিকে, ধর্ষণ ও হত্যার ঘটনার প্রতিবাদে শিক্ষার্থীসহ কয়েকটি সংগঠন মানববন্ধন করেছে।

রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী হেমায়েত উদ্দিন খান বলেন, অত্যন্ত পাশবিকতার ও নিষ্ঠুরতার আশ্রয় নিয়ে একজন সম্ভাবনাময় একজন মেধাবী ছাত্রীকে সে নির্মমভাবে হত্যা করে। সে তার নিজের দোষ স্বীকার করে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দিয়েছেন।

জানা যায়, ধর্ষণের শিকার ছাত্রী রাজধানীর ধানমন্ডির মাস্টারমাইন্ড স্কুলের ও লেভেলের শিক্ষার্থী। বৃহস্পতিবার সকাল ১১টায় গ্রুপ স্টাডির কথা বলে তাকে কলাবাগানের ডলফিন গলির বাসায় নিয়ে যাওয়া হয়। একপর্যায়ে তাদের মধ্যে শারীরিক সম্পর্ক হয়। শারীরিক সম্পর্ক পর রক্তক্ষরণ ও অচেতন হয়ে পড়লে আনোয়ার খান মডার্ন হাসপাতালে নিয়ে যান অভিযুক্ত নিজেই। এর মধ্যেই স্বজনদের কাছে খবর আসে, মারা গেছেন ওই শিক্ষার্থী।

ঢা/এসআর

জানুয়ারি ৮, ২০২১ ৬:৪৬

(Visited 89 times, 1 visits today)