দেশে হচ্ছে প্রথম মহাকাশ অবলোকন কেন্দ্র

  •  
  •  
  •  
  •  

ঢাকা১৮ প্রতিবেদক: ফরিদপুরের ভাঙ্গায় স্থাপন করা হচ্ছে দেশের প্রথম মহাকাশ অবলোকন কেন্দ্র। মহাকাশ বিজ্ঞান চর্চা উৎসাহিতকরণ, শিক্ষাবান্ধব বিনোদনের মাধ্যমে শিক্ষার প্রতি আগ্রহ সৃষ্টি, গবেষণা, প্রশিক্ষণের ব্যবস্থা থাকবে। প্রকল্পের আওতায় জনসাধারণের জন্য মহাকাশ পর্যবেক্ষণের সুযোগ সৃষ্টি হবে।

আগামী প্রকল্পটি মঙ্গলবার (১৯ জানুয়ারি) একনেক সভায় উস্থাপন করা হবে।

জানা যায়, দেশে বিজ্ঞানী ও সাধারণ জনগণের মধ্যে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির বিষয়ে বোধগম্যতা ও জ্ঞানের বড় ব্যবধান রয়েছে। প্রকল্পের মাধ্যমে মহাকাশ বিজ্ঞান চর্চার নতুন একটি ক্ষেত্র তৈরি হবে। বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মহাকাশ অবলোকন কেন্দ্র স্থাপল্প প্রকল্পের আওতায় এ উদ্যোগ। এতে মোট ব্যয় ২১৩ কোটি টাকা। প্রকল্পটি জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটিতে (একনেক) অনুমোদনের পর ২০২৪ সালের জুন মেয়াদে বাস্তবায়ন করা হবে। কর্কট ক্রান্তি রেখা ও ৯০ ডিগ্রি পূর্ব দ্রাঘিমার সংযোগস্থল ফরিদপুরের ভাঙ্গায়। এখানে একটি মহাকাশ অবলোকন কেন্দ্র স্থাপন করলে টেলিস্কোপে বাংলাদেশ থেকেই মহাকাশ পর্যবেক্ষণের সুযোগ সৃষ্টি হবে।

প্রকল্পের মূল কার্যক্রমের মধ্যে রয়েছে ১০ একর জমি অধিগ্রহণ, ১২ সেট বৈজ্ঞানিক যন্ত্রপাতি ও গবেষণা সরঞ্জাম কেনা, ৩১ সেট প্রদর্শনীয় বস্তু ও শিক্ষা উপকরণ কেনা, আসবাবপত্র সংগ্রহ, ডিজিটাল উপকরণ, কম্পিউটার ও আনুষাঙ্গিক সরঞ্জাম সংগ্রহ এবং অবজারভেটরি টাওয়ার ও বেষ্টনী ভবনসহ যাবতীয় নির্মাণ কাজ।

এ প্রতিষ্ঠান মহাকাশ বিজ্ঞান ও দূর অনুধাবন প্রযুক্তি, বন ও পরিবেশ, কৃষি মৎস্য, ভূ-তত্ত্ব, মানচিত্র অংকন, পানিসম্পদ, ভূমি ব্যবহার, আবহাওয়া, ভূগোল, সমুদ্র বিজ্ঞান ইত্যাদি ক্ষেত্রে গবেষণা কাজে নিয়োজিত। এছাড়া কেন্দ্রটি একটি শিক্ষা সহায়ক বিনোদন কেন্দ্র হিসেবে গড়ে উঠবে। যার সুবিধা পেতে শুধু বাংলাদেশি নয়, বিদেশি পর্যটকদেরও আগমন ঘটবে।

জাতীয় বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি জাদুঘরের মহাপরিচালক মোহাম্মাদ মুনীর চৌধুরী জানান, ফরিদপুরের ভাঙ্গায় স্থাপন করা হচ্ছে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান মহাকাশ অবলোকন কেন্দ্র। প্রকল্পটি একনেক সভায় উস্থাপন করা হবে। এতে মোট ব্যয় ২১৩ কোটি টাকা এবং একনেকে অনুমোদনের পর ২০২৪ সালের জুন মেয়াদে বাস্তবায়ন করা হবে। সঠিক সময়ে স্বচ্ছভাবে প্রকল্পটি বাস্তবায়নে নানা উদ্যোগ নেওয়া হবে।

প্রকল্পটি বাস্তবায়নে দেশ-বিদেশে বাংলাদেশের ভাবমূর্তির উন্নয়ন হবে। জাতীয় জীবনের আর্থ-সামাজিক পরিসরে ইতিবাচক দিকে গতি সঞ্চার করবে বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সূচক।

ঢা/এসআর

জানুয়ারি ১২, ২০২১ ১:৩৩

(Visited 59 times, 1 visits today)