এবার শিক্ষকদের দুঃসংবাদ দিল এনটিআরসিএ

এবার শিক্ষকদের দুঃসংবাদ দিল এনটিআরসিএ
  •  
  •  
  •  
  •  

ঢাকা১৮ রিপোর্ট: বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে কর্মরত নিবন্ধন সনদধারী শিক্ষকদের তালিকা করছে বেসরকারি শিক্ষক নিবন্ধন ও প্রত্যয়ন কর্তৃপক্ষ (এনটিআরসিএ)। নিবন্ধন সনদধারী কতজন শিক্ষক কমিটির মাধ্যমে নিয়োগ পেয়ে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে কর্মরত আছেন তাদের তালিকা পাঠাতে বলা হয়েছে জেলা শিক্ষা কর্মকর্তাদের।

নিবন্ধন সনদধারী শিক্ষকদের তথ্য সংগ্রহের উদ্দেশ্যেই শিক্ষকদের তালিকা পাঠাতে বলা হয়েছে বলে জানিয়েছে এনটিআরসিএ সূত্র।

সূত্র জানায়, বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে ২০০৫ খ্রিষ্টাব্দ থেকে ২০১৫ খ্রিষ্টাব্দ পর্যন্ত কতজন শিক্ষক কর্মরত আছেন তাদের তথ্য আগামী ৫ অক্টোবরের মধ্যে সফট কপি ও হার্ডকপিতে পাঠাতে বলা হয়েছে জেলা শিক্ষা কর্মকর্তাদের। কতজন শিক্ষক নিবন্ধন সনদ নিয়ে কর্মরত আছেন সে তথ্য সংগ্রহের উদ্দেশ্যেই জেলা শিক্ষা কর্মকর্তাদের কাছ শিক্ষকদের তথ্য চাওয়া হয়েছে।

সূত্র আরও জানায়, ২০১৬ খ্রিষ্টাব্দ থেকে শিক্ষক নিয়োগ দিচ্ছে এনটিআরসিএ। তাই ২০১৬ খ্রিষ্টাব্দের পর নিয়োগ পাওয়া শিক্ষকদের তথ্য এনটিআরসিএতে আছে। কিন্তু নিবন্ধন সনদে নিয়োগ চালুর পর ২০১৫ খ্রিষ্টাব্দ পর্যন্ত কমিটির মাধ্যমে নিয়োগ পাওয়া শিক্ষকদের তথ্য নেই। তাই জেলা শিক্ষা কর্মকর্তাদের এসব তথ্য জানানো হয়েছে।

২০০৫ খ্রিষ্টাব্দ থেকে ২০১৫ খ্রিষ্টাব্দ পর্যন্ত শত শত শিক্ষক জালসনদ নিয়ে কমিটির মাধ্যমে ঘুষ দিয়ে নিয়োগ পেয়ে এমপিওভুক্ত আছেন। তথ্য সংগ্রহের পর কমিটির মাধ্যমে নিয়োগ পাওয়া জালসনদধারী শিক্ষকদের চিহ্নিত করে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে শিক্ষা মন্ত্রণালয় ও এনটিআরসিএর কাছে দাবি জানিয়েছেন প্রার্থীরা।

এদিকে কয়েকটি জেলা শিক্ষা অফিসের কর্মকর্তারা জানিয়েছেন, ইতোমধ্যেই নিবন্ধন সনদধারী শিক্ষকদের তথ্য সংগ্রহ শুরু হয়েছে।

ঢা/কেএম

সেপ্টেম্বর ২৭, ২০২০ ৫:৩৫

(Visited 1,290 times, 1 visits today)